Home / World Blog / বাংলা ব্লগ / ভারতে আযান বিতর্ক! আযানের কর্কশ সুর ও আমাদের কথা
India Azan Debate

ভারতে আযান বিতর্ক! আযানের কর্কশ সুর ও আমাদের কথা

ভারতীয় শিল্পী গায়ক সনু নিগম বলেছেন, তার কাছে আযানের সুর কর্কশ লাগে। তিনি মুসলিম নন, তবুও কেন ভোর বেলার আযানের কর্কশ সুরে জাগতে হবে? এবং তিনি আরো বলেছেন এটা নাকি গুন্ডামী এবং তাকে কেন মানতে হবে।

সম্মানিত শিল্প, ঠিক আছে। হয়তো আযানের সুর আপনার কাছে কর্কশ লাগে বা লাগতেই পারে।  এটা মনতান্ত্রিক অবস্থার উপর নির্ভর করে। অনেকের কাছে ঘরে বৈধ বউ থাকতে যৌন পল্লী’র মেয়েরা বেশিই লাগে। আপনি মিউজিক জগতের লোক তাই আপনার কাছে ঢোল তবলার হারমনি গিটারের শব্দই মধুর লাগবে।  আমি ইসলাম মনসতান্ত্রিক লোক তাই ইসলামের সুর আমার কাছে বেশি ভালো লাগবে এটাই স্বাভাবিক। তাই আমি সেদিকে যাবো না। কিন্তু আমি যেদিকে না যেয়ে পারছি তা হলো, আপনি বলেছেন আযানের সুর গুন্ডাগিরি। আপনি অমুসলিম, আপনাকে তা মানতে হবে কেনো? সম্মানিত সনু ভাই, গরুর মাংস খাওয়া আপনার  হিন্দু ধর্মে হয়তো নিষিদ্ধ হতে পারে, ভারতে অবস্থানরত মুসলিম ধর্মালম্বীদের কেনো মানতে হবে? তাদেরকে কেনো গরু  জবাইয়ের অপরাধে হত্যাকান্ডের শিকার হতে হবে, কেনো মুসলিম নারীদেরকে ধর্ষিত হতে হবে? এর কারণ টি কি আপনি ব্যাক্ষ্যা করবেন?

আপনি আত্মসমর্থন করতে গিয়ে বলেছেন, আপনি আযানের বিরুদ্ধে বলেন নি বরং আযানে মাইক ব্যবহার নিয়ে কথা বলেছেন। আপনার সমর্থকরা বলছে আযানের মাইক ব্যবহারে নাকি শব্দ দূষণ হয়। আমি আযানে মাইক ব্যবহারের শব্দ দূষণ সামান্য সময়ের জন্য মেনে নিলাম। কিন্তু আপনারা বলেন, আযানের শব্দ দূষণ কতটুকু হয়? পাঁচ ওয়াক্তের আযান দিতে লাগে বড় জোর দশ মিনিট। আপনারা যে গানের অনুষ্ঠানে বড় বড় স্পীকার লাগিয়ে ঘন্টার পর ঘন্টা শব্দ দূষণ সৃষ্টি করেন, আযানের শব্দ দূষণ কি তার চেয়েও বেশি? আপনি আযানের শব্দ দূষণের বিরুদ্ধে কথা বললেন, মন্দিরে পূজার ঘন্টা বাজানোর শব্দ দূষণের কথা বললেন, ঘন্টার পর ঘন্টার যে গানের আসরে যে শব্দ দূষণ হয়, সেটার বিরুদ্ধে কেনো কথা বললেন না? সামান্য সময় পূজার ঘন্টা ও আযানের কারনে শব্দ দূষণ হয়, ঘন্টার পর ঘন্টা চলা গানের আসরে বুঝি শব্দ দূষণ হয়না? এখানে কোনটা সত্য?

সনু সাহেব, আপনার দেশের মানুষের চলাচলের প্রধান যানবাহন হচ্ছে ট্রেন। একটি ট্রেন যখন তার নির্দৃষ্ট এলাকা দিয়ে গন্তব্যস্থলে যায় তখন কি পরিমান শব্দ দূষণ হয় আপনি কি তা জানেন? ট্রেনের হর্ণের বিকট শব্দ কি আপনি কখনো শুনেছেন? ঐসব এলাকায় লোকেরা কি পরিমাণ শব্দ সহ্য করে তা কি আপনি জানার চেষ্টা করেছেন? না তা করেন নি। 

আপনি করেন কি, একটি ধর্মকে টার্গেট করে বিদ্রুপ মন্তব্যের মাধ্যমে অশান্তি পরিবেশ সৃষ্টি করার লক্ষ্য বির্তক বাধিয়ে দিলেন। নিজেকে উগ্রপন্থীদের সদস্য হিসেবে জাহির করলেন। আপনার সমর্থনে গায়ক অভিজিৎকেও টাইমস টিভিতে বড় ও উগ্র গলায় কথা বলতে দেখা গেল। কিন্তু খবরের পিছনেও খবর থাকে। আপনাকে বিজেপি দলের সাথে বড় ভাবময় অবস্থায় দেখা  যায় যারা নাকি দাঙ্গার  মাধ্যমে অসংখ্য নারী পুরুষ হত্যা ও নারী শিশুদেরকে ধর্ষণ করেছে। তার সাথে আরো জানা যায় যে, আপনার বাড়ি থেকে ৬০০ মিটারের আগে কোন মসজিদ নেই। আর আযান দেওয়ার জন্য সে মসজিদে কোন মাইক নেই। তাহলে ৬০০ মিটারের দূর থেকে খালি মুখের আযান আপনার রুমে কি করে পৌঁছালো? লোকেরা ইদারিং বলাবলি শুরু করেছে আপনার নাকি মার্কেট খারাপ। আসলে কি তাই নাকি ভারতে নতুন করে দাঙ্গা বাঁধানোর মাধ্যমে মুসলিমদের হত্যা ধর্ষণের মদদ দিচ্ছেন। কোন টা সত্য?  

আপনার গল্প কবিতা ও মতামত প্রকাশ করুণ |
আপনার লেখিত কোন গল্প-কবিতা বা অন্যান্য সাম্মগ্রী আছে? থাকলে এখই আমার বাংলা পোস্ট.কমে প্রকাশ করুণ। আমরা আপনার লেখিত সামগ্রী হাজারো লোকের কাছে পৌঁছে দিবো। আপনার গল্প-কবিতা ও মতামত প্রকাশ করতে এখনই আমার বাংলা পোস্ট এ একটি একাউন্ট খুলুন অথবা আমাদেরকে মেইল করে পাঠিয়ে দিন। মেইল : Amarbanglapost@gmail.com মেইল আইডি না থাকলে ইমো’র মাধ্যমেও পাঠাতে পারেন। ইমো : 01741757725।

আমাদের মতামতে আপনার রেটিং দিন

0%

প্রিয় পাঠক-পাঠিকা, এই ব্লগ লেখাটি পড়ে আপনার কাছে কেমন লেগেছে তার উপর ভিত্তি করে আপনি একটি রেটিং দিন। আপনি রেটিং দিতে নিচের পাঁচটি তারা থেকে আপনার রেটিং তারাতে ক্লিক করুন। সর্বোচ্চ রেটিং দিতে ৫ম তারাতে ক্লিক করুন।

আযান বিতর্কে ভিডিও দেখুন
User Rating: 4.52 ( 3 votes)

About Syed Rubel

Creative Writer/Editor And CEO At Amar Bangla Post. most populer bloger of bangladesh. Amar Bangla Post bangla blog site was created in 2014 and Start social blogging.

Check Also

বিয়ে

পুরুষের বিয়ে মানেই মৃত্যু নাকী উজ্জীবিত! কোনটি সত্য?

বউ আমার আসল তার পরিবারকে ছেড়ে, অথচ উল্টা আমাকেই অনেকে বলা শুরু করল, "বিয়ে তো …

One comment

  1. সুন্দর জবাব। 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *