Home / বই / ইসলামী শরী‘য়াহর বাস্তবায়ন ও উম্মাহর উপর এর প্রভাব

ইসলামী শরী‘য়াহর বাস্তবায়ন ও উম্মাহর উপর এর প্রভাব

সংক্ষিপ্ত বর্ণনা: এ ছোট্ট পুস্তিকায় লিখক ইসলামী শরী‘য়াহ বাস্তবায়নের প্রয়োজনীয়তা তুলে ধরেছেন ও মানব রচিত আইন কানুনকে প্রত্যাখ্যান করার যথার্থতা বর্ণনা করেছেন; কেননা মানুষের তৈরী আইনই মুসলমানদের যত দুর্দশা ও দুশ্চিন্তার হেতু।

আব্দুল্লাহ ইবন স‘উদ আল-হুয়াইমিল

 

অনুবাদ : আব্দুল্লাহ আল মামুন

 

সম্পাদনা : ড. মোহাম্মদ মানজুরে ইলাহী

প্রকাশনায়:ইসলাম প্রচার ব্যুরো, রাবওয়াহ, রিয়াদ

 

ভূমিকা

সব প্রশংসা সে মহান আল্লাহর যিনি ইসলামকে আমাদের জন্য জীবন বিধান ও পন্থা হিসেবে নির্বাচন করেছেন। আমরা তাঁর প্রশংসা করছি, তারই কাছে সাহায্য প্রার্থনা করছি, তাঁর নিকট ক্ষমা চাচ্ছি, তাঁর কাছে আমাদের অন্তরের সব কলুষ ও পাপ থেকে পানাহ চাই। তিনি যাকে হিদায়াত দান করেন কেউ তাকে গোমরাহ করতে পারে না, আর তিনি যাকে পথ-ভ্রষ্ট করেন কেউ তাকে হিদায়াত দিতে পারে না। আমি সাক্ষ্য দিচ্ছি যে, একমাত্র আল্লাহ ছাড়া কোনো হক্ব ইলাহ নেই, তাঁর কোনো শরীক নেই, আমি আরও সাক্ষ্য দিচ্ছি যে, মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম আল্লাহর বান্দা ও রাসূল।

অতঃপর, বর্তমান মুসলিম উম্মাহর দিকে তাকালে ও তাদের বাস্তব অবস্থা নিয়ে চিন্তা ভাবনা করলে দেখা যাবে তাদের অনেকেই পথভ্রষ্ট হয়েছে, বর্তমানে তারা আসমানি শরী‘য়াহ পরিহার করেছে ও আল্লাহ প্রদত্ত বিধান ছেড়ে মানব রচিত বিধানের পথে চলছে। তারা পরস্পর বিরোধী এমন কিছু মানব রচিত জীবন বিধান ও আইন কানুনে নিজেদের জীবনকে পরিচালিত করছে, যা শুধু বুদ্ধি-বিবেক প্রসূত চিন্তা ভাবনা ছাড়া আর কিছুই নয়।

ইসলামী রাষ্ট্রে শাসকদের ক্ষমতার প্রতিদ্বন্দ্বিতা এক অসহনীয়  পর্যায়ে পৌঁছেছিল। তাদের কেউ কেউ পূর্ব-পশ্চিমে তাদের আধিপত্য বিস্তার করতে ইসলামের সাধ্য ও প্রচেষ্টাকে অস্বীকার করে বসল। কেউ আবার অমুসলিমদের থেকে নানা বুদ্ধি ও আইন কানুন আমদানি করতে লাগল। তারা এ সব আইন কানুন রাষ্ট্রে অত্যাবশ্যকীয় করল এবং যারা এ সবের বিরোধিতা করত বা এ সব দিয়ে হুকুমত পরিচালনা করতে অস্বীকার করত তাদেরকে ভর্ৎসনা করা হত। এ কারণেই আমি এ সংক্ষিপ্ত আলোচনাটি নিজ দায়িত্ব আদায়ের জন্য লিপিবদ্ধ করেছি। এতে ইসলামী শরী‘য়াহ বাস্তবায়নের প্রয়োজনীয়তা তুলে ধরেছি ও মানব রচিত আইন কানুনকে প্রত্যাখ্যান করার যথার্থতা বর্ণনা করেছি; কেননা মানুষের তৈরী আইনই মুসলমানদের দুর্দশা ও দুশ্চিন্তার হেতু।   

আমি এ গবেষণাপত্রটি সাতটি পরিচ্ছেদে ভাগ করেছি, সেগুলো হলো:               

প্রথম পরিচ্ছেদ: ইসলামী শরী‘য়াহর পরিচয়। 
দ্বিতীয় পরিচ্ছেদ: ইসলামী শরী‘য়াহর উৎসসমূহ
তৃতীয় পরিচ্ছেদ: সলামী শরী‘য়াহর বৈশিষ্ট্যসমূহ।
চতুর্থ পরিচ্ছেদ: ইসলামী শরী‘য়াহ সহজ সরল হওয়ার দলিল।
পঞ্চম পরিচ্ছেদ: ইসলামী শরী‘য়াহ বাস্তবায়নের হুকুম।
ষষ্ঠ পরিচ্ছেদ: আল্লাহর নাযিল কৃত বিধান ছাড়া অন্য বিধান অনুযায়ী শাসন ব্যবস্থা পরিচালনা করার কারণসমূহ।
সপ্তম পরিচ্ছেদ: ইসলামী শরী‘য়াহর ব্যাপারে কতিপয় দ্বিধা সংশয় এবং এগুলোর অপনোদন।
উপসংহার। 

 

*উপসংহার

সব প্রশংসা মহান আল্লাহর যার নি‘য়ামতে ভালো কাজ সম্পন্ন হয়, সালাত ও সালাম শেষ নবীর উপর যার পরে আর কোনো নবী আসবেন না।

সব প্রশংসা আল্লাহর, তাঁর দয়া ও অনুগ্রহে এ কাজটি সম্পন্ন হলো। এ ছোট গবেষণাটি পূর্ণ হয়েছে। এতে আমি ইসলামী শরী‘য়াহর বাস্তবায়নের কিছু দিক তুলে ধরেছি, বিশেষ করে ইসলামী শরী‘য়াহর উৎস, বৈশিষ্ট্য, ইসলামী শরী‘য়াহ উদার ও সহজ সরল হওয়ার দলিল, ইসলামী শরী‘য়াহ বাস্তবায়নের হুকুম ও ইসলামী শরী‘য়াহর ব্যাপারে কতিপয় দ্বিধা সংশয় এবং এগুলোর অপনোদন।

গবেষণাটি যেহেতু শেষ পর্যায় তাই পরিশিষ্টে কিছু ফলাফল উল্লেখ করা প্রয়োজন মনে করি। এগুলো হলো:

১- ইসলামী শরী‘য়াহ পূর্ববর্তী সব শরী‘য়াহকে রহিতকারী।

২- এ শরী‘য়াহর উৎস হলেন এমন একজন, যিনি মানুষের কল্যাণ অকল্যাণ ও ভাল মন্দ সব কিছুই জানেন।

৩- রাজা প্রজা নির্বিশেষে সব মুসলমানের উচিত ইসলামী শরী‘য়াহ অনুযায়ী রাষ্ট্র পরিচালনা করা।

৪- ইসলামী শরী‘য়াহকে বাদ দেয়াই হলো সব ধরনের অন্যায় ও ফিতনার কারণ।

৫- ইসলামী শরী‘য়াহ বাস্তবায়ন না করার ফলে রাজনৈতিক, সামাজিক, আখলাকি ও অর্থনৈতিক জীবনে অনেক নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে।

৬-  মুষ্টিমেয় কিছু নোংরা মানুষ ইসলামী শরী‘য়াহ বাস্তবায়ন করার ব্যাপারে নানা সন্দেহ সংশয় সৃষ্টি করছে, তাদের উদ্দেশ্য হলো মানব জীবনকে এ শরী‘য়াহ থেকে দূরে রাখা।

আমাদের সর্বশেষ দো‘আ হলো যে, সব প্রশংসা সৃষ্টিকুলের রব মহান আল্লাহ তা‘আলার, সালাত ও সালাম সর্বশ্রেষ্ঠ নবী ও রাসূল মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লামের উপর।

 

 

সূত্রাবলী

১- আল-কুরআনুল কারীম।

২- আল-কামূস আল-মুহীত, লেখক আল্লামা মুহাম্মদ ই‘য়াকুব আল-ফাইরোয আবাদী, মুদ্রণ, মু’য়াসাসাতুর রিসালাহ, ১ম সংস্করণ।

৩- উসূলুশ শাশী, লেখক আস-সুরুখসী, ১ম খন্ড।

৪-  আল-হুকমু বিমা আনঝালাল্লাহ, লেখক আব্দুল আযিম ফাওদাহ, মুদ্রণ, দারুল বুহুস আল-‘ইলমিয়াহ লিন নাশরি ওয়াত তাওঝি, লেবানন, ১ম সংস্করণ।

৫- আল-ইকলীল ফি ইসতিম্বাতিত তানযীল, লেখক জাজালুদ্দীন আস- সুয়ূতী, মুদ্রণ: দারুল কুতুব আল-‘ইলমিয়াহ, লেবানন, ২য় সংস্করণ।

৬- আসবাবুল হুকম বিগাইরি মা আনঝালাল্লাহু, লেখক ডঃ সালেহ আস-সাদলান, মুদ্রণ: দারুল মুসলিম, ১ম সংস্করণ।

৭- আল-খিরাজ, লেখক ইমাম আবু ইউসুফ, মুদ্রণ: দারুল মা‘রিফাহ, লেবানন।

৮- তাহকিমুল কাওয়ানিন আল-ওয়াদ‘ঈয়াহ, লেখক, মুহাম্মদ ইবন ইবরাহীম আলে আশ-শাইখ, মুদ্রণ: দারুল ওয়াতান লিননাশরি ওয়াত্তাওঝি, ৭ম সংস্করণ।

৯- তালবিস ইবলিস, লেখক ইবনুল কাইয়্যুম,  মুদ্রণ: দারুল আরাবী, লেবানন।

১০- তাজুল লুগাহ ওয়া সিহাহুল আরাবীয়াহ, লেখক, আবু নসর ইসমাইল ইবন হাম্মাদ আল-জাওহারী, মুদ্রণ: দারুল ফিকর লিননাশরি ওয়াত্তাওঝি, ১ম সংস্করণ।

১১- তারিখুশ শারা’য়ে‘, লেখক ড: মুখতার কাদী, ১ম সংস্করণ।

১২-  তাফসীরুল কুরআনুল আযীম, লেখক হাফেয ইবন কাসীর, মুদ্রণ: কায়রো, ২য় সংস্করণ (১৩৭৫ হিজরী)।

১৩- জাহেলিয়াতুল কারনিল ‘ঈশরীন, লেখক মুহাম্মদ কুতুব, মুদ্রণ: দারুশ শুরুক, কায়রো, (১৪০২ হিজরী)।

১৪- সুনানে ইবন মাজাহ, মুদ্রণ: শারিকাতু তাবা‘আহ আল-আরাবীয়াহ আস-সউদীয়াহ, ৩য় সংস্করণ।

১৫- সুনানে আবু দাউদ, মুদ্রণ: দারুল মা‘আরিফাহ, লেবানন, ৩য় খন্ড।

১৬- শুবহাত হাওলাল ইসলাম, লেখক মুহাম্মদ কুতুব, মুদ্রণ: মাকতাবা ওয়াহাবাহ, কায়রো, ষষ্ঠ সংস্করণ (১৯৬৪ ইং)।

১৭- সহীহ বুখারী, লেখক ইমাম আল-বুখারী, ৯ম খন্ড।

১৮- আল-ফারুক উমর ইবন খাত্তাব, লেখক মুহাম্মদ রিদা,

মুদ্রণ: দারুল কুতুব আল-ইলমিয়্যাহ, লেবানন, ১ম খন্ড।

১৯- ফি মুওয়াজাহাতিল মু’আমারাতি ‘আলা তাত্ববীকিশ শরী‘য়াহ আল-ইসলামীয়াহ, লেখক, মুস্তফা ফারগিলী আশ-শুগাইরী, মুদ্রণ: মারকাজুল মালিক ফাইসাল লিলবুহুস ওয়াদদিরাসাতিল ইসলামিয়্যাহ, মুদ্রণ নং (১০৫১২, ১৮২৩)।

২০- মাসাদিরুত তাশরী’ ফিমা লা নসসা ফিহি, লেখক: আব্দুল ওয়াহহাব খাল্লাফ, ১ম সংস্করণ।

২১- আল-মুসতাসফা ফি ইলম আল-উসূল, লেখক: ইমাম গাযালী, ১ম সংস্করণ।

২২- মাসরা‘উশ শিরক ওয়াল খারাফাহ, লেখক খালিদ আলী আল-হাজ্ব, ১ম সংস্করণ।

২৩- মাজমু‘উ ফাতাওয়া শাইখুল ইসলাম ইবন তাইমিয়াহ, ইবন কাসিমের সন্নিবেশ, মুদ্রণ: আর-রিয়াসাহ আল-‘আম্মা লিলবুহুস, সৌদি আরব।

২৪- মুসনাদ ইমাম আহমদ ইবন হাম্বল, মুদ্রণ: আল-মাকতাব আল-ইসলামী, লেবানন, ২য় সংস্করণ (১৪০৫ হিজরী)।

২৫- উজুব তাহকিমুশ শারী‘য়াহ আল ইসলামিয়া, লেখক, মান্না‘আ খলিল কাত্তান, মুদ্রণ: ইমাম মুহাম্মদ ইবন সউদ আল-ইসলামীয়াহ বিশ্ববিদ্যালয়, (১৪০৫ হিজরী)।

২৬- উজুব তাহকিমুশ শারী‘য়াহ আল ইসলামিয়া ফি কুল্লি ‘আসর, লেখক, সালিহ ইবন ঘানেম আস-সাদলান, মুদ্রণ: দারু বুলনাসিয়াহ লিননাশরি ওয়াততাওঝি, সৌদি আরব, ১ম সংস্করণ (১৪১৭ হিজরী)।

About Syed Rubel

Creative writer and editor of amar bangla post. Syed Rubel create this blog in 2014 and start social bangla bloggin.

Check Also

ইসলামের নামে জঙ্গীবাদ

ইসলামের নামে জঙ্গিবাদ (বাংলা বই)

বইয়ের নামঃ ইসলামের নামে জঙ্গিবাদ। (আলোচিত অনালোচিত কারণসমূহ।) লেখকঃ ড. খোন্দকার আব্দুল্লাহ জাহাঙ্গীর। পি.এইচ.ডি. (রিয়াদ), …

No comments

  1. Pingback: Shari’ah – ISLAMIC BANKING AND FINANCE

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *